আলিয়ার ‘গাঙ্গুবাঈ’র প্রশংসায় পঞ্চমুখ কিং খান



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
আলিয়া ভাট

আলিয়া ভাট

  • Font increase
  • Font Decrease

সঞ্জয়লীলা বানসালির ‘গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি’তে অভিনয় করছেন আলিয়া ভাট। কামাথিপুরা, মুম্বাইয়ের কুখ্যাত রেড লাইট এলাকা। সেই এলাকার ম্যাডামজি নামে পরিচিত ছিলেন গঙ্গুবাই। সেই ভূমিকাতেই দেখা যাবে বলিউডের এই অভিনেত্রীকে।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) মুক্তি পেলে বহুচর্চিত ও প্রতীক্ষিত ছবি ‘গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি’র ফার্স্ট লুক পোস্টার ও টিজার।

আলিয়া ভাট অভিনীত ‘গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি’ টিজার দেখার পর সেটি নিজের অফিশিয়াল ফেসবুক পেজে শেয়ার করেছেন বলিউড কিং শাহরুখ খান। একইসঙ্গে টিজার এবং আলিয়ার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছেন তিনি।

এস হুসেন জাইদির লেখা বই ‘মাফিয়া কুইনস অব মুম্বাই’ অবলম্বনে তৈরি হয়েছে ‘গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি’র চিত্রনাট্য। এই ছবিটির মধ্য দিয়ে প্রথমবার সঞ্জয়লীলা বানসালির সঙ্গে কাজ করলেন আলিয়া ভাট।

২০২০ সালের ১১ সেপ্টেম্বর মুক্তি পাওয়ার কথা ছিলো ছবিটির। কিন্তু করোনাভাইরাস মহামারির কারণে আটকে যায় সেটি। তবে আগামী ৩০ জুলাই প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে যাচ্ছে ছবিটি।

কে ছিলেন এই গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি?
এস হুসেন জাইদির লেখা বই ‘মাফিয়া কুইনস অব মুম্বাই’ থেকে জানা যায়, মাত্র ১৬ বছর বয়সে বাবার হিসাবরক্ষকের সঙ্গে গঙ্গা হরজীবনদাস কাথিওয়াড়িয়া (গঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি) গুজরাত থেকে মুম্বাইয়ে পালিয়ে এসেছিলেন। কিন্তু প্রেমে ধোঁকা খেতে হয়েছিল এই কিশোরীকে। বিয়ে করেও স্বামী তাকে বিক্রি করে দেয়। ডন করিম লালার একাধিক গ্যাং মেম্বার তাকে বারবার ধর্ষণ করে। তবুও হাল ছাড়েন না গঙ্গুবাই। শেষমেষ করিম লালার সঙ্গে সাক্ষাত্ করেন গঙ্গুবাই। তাকে নিজের বোনের সম্মান দেয় করিম লালা। এরপরই কামাতিপুরায় একটি গণিকালয় শুরু করেন গঙ্গুবাই।

শাহরুখ খানের শেয়ার করা পোস্ট

এরপর সেই গঙ্গুবাই হয়ে উঠেছিলেন সম্পূর্ণ কামাতিপুরার হর্তাকর্তা বিধাতা। কিন্তু জোড় করে যে সব মেয়েদের এই পেশায় ঠেলে দেওয়া হতো তাদের প্রতি সহানুভূতিশীল ছিলেন তিনি।